প্রস্তাব

৳ 200.00

প্রস্তাব ফরহাদ মজহার’র প্রথম প্রকাশিত গদ্য। বেরিয়ে ছিল সেই ঊনিশ ছিয়াত্তর সালে তরুন বয়সে। যে কবির চোখের সামনে অঙ্কুরিত হচ্ছিল জাতীয় আকাঙ্ক্ষার বীজ, পল্লবিত হচ্ছিল সর্বত্র উত্থনের স্বর, স্বাধীনাতাকে অর্থপূর্ণ করার তুমুল উচ্চাট–সেই অভিপ্রায়ের দীপ্তিমান দৃঢ়তায় নির্মিয়মান সত্তাকে জন্মলগ্ন থেকে আকার ও আশ্রয় দিতে তৎপর যার কাব্য প্রচেষ্টা স্বভাবতই তা ভাষ, বাক্যার্থ আর ভাবসম্পদের দার্শনিক আঙ্গিনায় প্রবেশ করে। বাংলাদেশ নামক সদস্য জেগে ওঠার রাষ্ট্র, তার রাজনীতিক সত্তার তাতপর্য সন্ধানে ইতিহাস ও সংস্কৃতি অন্তর্গত উপাদান, অভিজ্ঞতাগুলো কবিতার দিগন্ত ছাপিয়ে দর্শণের মিমাংসায় নিশ্চিন্ত করে নেবার সূচনায় তখন আলো ফেলে ছিলেন যে লাখাগুলতে–তারই একত্রিত প্রবন্ধ সংকলন প্রস্তাব। কবির দার্শনিক হয়ে ওঠা কিম্বা দশনের মুখোমুখি দাঁড়ানো কবি সত্তার কাছে ভাষা ও দর্শনের সম্পর্ক প্রস্ফুটিত হবার কালে রচিত ভাবনার উত্তরণ চিহ্নিত এই গ্রন্থভুক্ত লেখাগুলো। এটা ছিল, আজকের ফরহাদ মজহারের চিন্তার প্রত্যয়ী অবস্থান গ্রহণ, সক্রিয় চর্চায় নিয়োজিত হবার সন্ধিক্ষণ। ইতিহাসের সুনির্দিষ্ট পর্বে নিজের জন্য যে মূর্ত ভূমিকা নির্ধারণ করে তিনি িএগিয়ে চলতে চেয়েছেন তার পারস্পর্য, পরিপূর্ণতা এমনকি খোদ মোড় বদলের জায়গাগুলোর ছাপও পাঠক এখন মিলিয়ে নিতে পারবেন অনায়াসে। তখনকার চিন্তার উৎস আর এখনকার ভাবনার যোগসূত্র ধারাবাহিকভাবে এক স্পষ্ট অভিমুখের দিকে এগিয়েছে। সেই অভিমুখ ইতিহাসের কর্তাসত্তা নির্মাণে নিজস্ব ভাব,ভাষা, সংস্কৃতির মধ্যে প্রবাহিত অন্তর্লীন চেতনার নিহিত শক্তি ও সম্পদের ব্যাবহার; তাকে পুনরুদ্ধারের জন্য ঔপনিবেশিক পরিমন্ডলের বাইরে এস এর প্রয়োগ সাফল্যে প্রকৃত রূপটি পুনর্গঠিত করা । এই অভিযাত্রায় তিনি বিখ্যাত ফরাসি নৃতাত্ত্বিক লেভি স্রস‘র কাঠামোবাদের অনুপ্রেরণায় সাহসের সাথে বহুধূর পৌঁছাতে পেছিলেন। নির্দ্বিধায় বলতে পেরেছেন; আমাদের নিজস্ব ভাষায়,লোককল্পিত রচনাশৈলীর ভেতর বাহিত জীবনযাপনের মধ্যে পুষ্ট হয়ে বেড়ে ওঠা অন্তর্বিন্যস্ত যেসব ভাব- ভাবনা আগলে ধরে রেখেছে তা কেনো অংশেই য়ুরোপীয় বিজ্ঞানের চেয়ে খাটো নয়; নিখিল –ভাবনার সমক্ষ একটি সামগ্রিক চিন্তা কাঠামো, নূপকল্প আমাদেরও আছে। এই দুধর্য প্রস্তাবনাই প্রস্তাব বইটির ভারকেন্দ্র দখল করে আছে। সেই নিরিখে –ভাষা, শিল্প, চিন্তা, মানবীয়তা ও সঙ্গীত- আমাদের এসব ভাবসম্পদের মৌলিক স্ট্রাকচার প্রত্যাশী নিবিষ্ঠতা ধারণ করেছে লেখাগুলো। দীর্ঘ প্রায় তিনি যুগ পরে, এখন পাঠক আবারো তাঁর চিন্তার আদি বীজগুলো সাম্প্রতিক ভাবচর্চা ও জীবন যাপনের ভিতর কীভাবে অন্তঃসলিল তা পরখ করতে পারবেন।